অবশেষে ভারতে পাবজি ইন্ডিয়া গেম শুরু হওয়ায় গেমারদের মুখে চওড়া হাসি ফুটেছে। কিন্তু এ হাসি কি কান্নায় পরিণত হবে? সম্প্রতি অরুণাচল প্রদেশের বিধায়ক পাবজি ইন্ডিয়া গেমটি ক নিষিদ্ধ করার দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে সরাসরি চিঠি দিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রীকে সেই চিঠিটি পাঠিয়ে সেই চিঠির ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন অরুণাচলের বিধায়ক নিনং ইরিং। তিনি তার চিঠিতে উল্লেখ করেছেন, পাপজির সঙ্গে গেমটির সামঞ্জস্য রয়েছে তাই ইউজারদের নিরাপত্তা নিয়ে অনেকটাই প্রশ্ন দেখা দিচ্ছে। আমাদের দেশের ব্যক্তিগত তথ্য অন্য দেশের কাছে চলে যাক এটা কোনোভাবেই কাম্য নয়। তাই তিনি গেমটি নিষিদ্ধ করার দাবি জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর কাছে।

গত বছর প্রধানমন্ত্রী চীনের উপর ডিজিটাল স্ট্রাইক এর কারণে এদেশে বন্ধ হয়েছিল পাবজি। গেমটির প্রস্তুতকারক দক্ষিণ কোরিয়ার সংস্থা হলেও এর সঙ্গে চীনা সংস্থারও যোগ ছিল। তার ফলেই নিষিদ্ধ করা হয়েছিল পাবজি কে। যদিও পরবর্তীতে চিনা সংস্থার সঙ্গে সম্পর্ক ছেদ করে ক্রাফটন। পরবর্তীতে ভারতের বাজারে নাম বদল করে আত্মপ্রকাশ ঘটে পাবজি গেমটির।

বিধায়ক চিঠিতে আরও দাবি করেছেন যে, ক্রাফটন এর সঙ্গে চিনা সংস্থা টেনসেন্ট এর এখনো যোগাযোগ রয়েছে। পাবজি ইন্ডিয়া গুগল প্লে স্টোরে যে URL দিয়ে রয়েছে সেটি পাবজি মোবাইলের URL ছিল। অর্থাৎ পুরনো পাবজি আবার নতুন মোড়কে যে ফিরেছে তা নিয়ে তার কোনো সন্দেহ নেই। ফলে যে উদ্দেশ্যে পাবজি নিষিদ্ধ করা হয়েছিল সেই উদ্দেশ্য সাধন হবে না বলে জানিয়েছেন নিনং।

Post a Comment

নবীনতর পূর্বতন
Dream Star Studio | Entertainment News in Bengali (বিনোদনের খবর), Latest Tollywood News, Bangla News